কটন ফাইবার নিয়ে বিস্তারিত (Details about Cotton Fiber)

এই পোষ্টে আমরা কটন ফাইবার নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব।

কটন ফাইবার হলো ফাইবারের রাজা। প্রকৃতি থেকে সবচাইতে বেশি উৎপন্ন হয় এই কটন ফাইবার, এবং কটন ফাইবার হতে উৎপন্ন কটন ফেব্রিক দ্বারা তৈরি পোশাক মানুষের সবচাইতে বেশি কমফোর্ট প্রদান করে। করুন ফাইবারের আরো অনেক গুণাগুন রয়েছে।

Fiber

কটন ফাইবারের গ্রেডিং (Grading of Cotton Fiber)

কটন ফাইবারের গ্রেডিং বিভিন্নভাবে করা যায়

  • দৈর্ঘ্যের উপর ভিত্তি করে
  • ট্রাশ কনটেন্টের উপর ভিত্তি করে
  • বিভিন্ন দেশ থেকে কটন ফাইবার আসে তার উপর ভিত্তি করেও ফাইবার গ্রেডিং করা হয়।

কটন ফাইবারের মূল বিবেচ্য বিষয়সমূহ

মূলত কটন ফাইবারের বিবেচ্য বিষয় তিনটি

  1. কটনের রং
  2. কটনের ট্রাশ
  3. কটন প্রস্তুত প্রণালী
Details about Cotton Fiber

কটনের রং (Cotton Color)

বিভিন্ন ধরনের তুলার বিভিন্ন ধরনের রং থাকতে পারে, আবার মাঝে মাঝে দেখা যায় গাছের ভিন্নতার কারণে তুলার রঙের মাঝে কিছুটা তারতম্য হতে পারে। তুলোতে পোকামাকড়ের সংক্রমণ হলে তুলার রং এর কিছুটা পরিবর্তন হতে পারে। মাঠ থেকে বিলম্বে উঠানোর ফলেও তুলার রঙের পরিবর্তন গঠতে পারে।

তুলার ব্যবহারের উপর ভিত্তি করে তুলার রং কে পাঁচ ভাগে ভাগ করা হয়।

  • সাদা 
  • ধূসর
  • স্পটেট 
  • টিন্জিড
  • হলুদ

এই পাঁচটি রং ধারণ করে কটন।

কটনের ট্রাশ (Cotton Trash)

কটন মান অনুযায়ী ট্রাশের পরিমাণ ১% থেকে ১৫% হয়ে থাকে। পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন তুলার মধ্যে ১% এবং নিম্নমানের তুলার মধ্যে ১৫% পর্যন্ত ট্রাশের পরিমাণ হয়ে থাকে।১৫% এর বেশি যদি ট্রাস্টের পরিমাণ হয়ে থাকে তাহলে তা রিজেক্ট করে দেওয়া হয়।

কটন প্রস্তুত প্রণালী (Cotton Preparation Method)

কটনের প্রস্তুত প্রণালী বলতে বুঝায় জিনিং প্রক্রিয়ার পূর্বে তুলাকে কিরকম অবস্থায় মজুদ করা হয় এবং তুলা কে কিভাবে ব্যবহার করা হয়। মূলত কটনের প্রস্তুত প্রণালী জিনিং এর গুনাগুনের উপর নির্ভরশীল।

ইয়ার্ন টুইস্ট সম্পর্কে জানতে – ক্লিক করুন

অল ওভার প্রিন্টিং সম্পর্কে জানতে – ক্লিক করুন

কটন ফাইবার নিয়ে বিস্তারিত জানতে – ক্লিক করুন

ইয়ার্ন ডায়ার মেশিনের কাজ সম্পর্কে জানতে – ক্লিক করুন

1 thought on “কটন ফাইবার নিয়ে বিস্তারিত (Details about Cotton Fiber)”

Leave a Comment