চাকরির পাশাপাশি যে কাজগুলো করতে পারেন

চাকরির পাশাপাশি আলাদা কিছু করে অতিরিক্ত ইনকাম করাকে আমরা অনেকেই পার্ট টাইম জব বলে থাকি। বাংলাদেশে পার্ট টাইম জব বেশি জনপ্রিয় নয়, কিন্তু বিশ্বের উন্নত দেশ, ইউরোপ – আমেরিকা আরো অনেক উন্নত দেশে এর জনপ্রিয়তা অনেক বেশি।

লেখাপড়া চলাকালীন অবস্থায় ও পারটাইম জব করা সম্ভব। বেশিরভাগ ছেলেমেয়েরা লেখাপড়া চলাকালীন সময়ে পার্ট টাইম জব করে থাকে। আমাদের দেশে পার্টটাইম জবের প্রচলন খুবই কম কিন্তু কিছু কিছু সেক্টরে পার্টটাইম জবের বেশ চাহিদা রয়েছে।

সেক্টরগুলো

  • ফ্রিল্যান্সিং (Freelancing)
  • ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট (Event Management)
  • গণমাধ্যম (Media)
  • সুপার শপ (Super shop)
  • ফটোগ্রাফার (Photographer)
  • কল সেন্টার (Call Center)

ফ্রিল্যান্সিং (Freelancing)

Freelancing

বর্তমান সময়ে তরুণদের জনপ্রিয় পছন্দ হলো ফ্রিল্যান্সিং, খুবই কম সময়ে বেশি টাকা ইনকাম করার একটি মাধ্যম। বাংলাদেশে প্রায় ৫০ – ৬০ হাজার তরুণ-তরুণী এই ফ্রিল্যান্সিং এর সাথে জড়িত। তারা ঘরে বসেই প্রত্যেক মাসে এক থেকে দেড় হাজার মার্কিন ডলার আয় করছেন।

ফ্রিল্যান্সিং এর মধ্যে রয়েছে, ওয়েবসাইট ডিজাইন, সোশ্যাল মার্কেটিং, ওয়েবসাইট তৈরি, মোবাইল অ্যাপস, গেমস, সফটওয়্যার তৈরি, ডাটা এন্ট্রি, গ্রাফিক ডিজাইন, ডিজিটাল ডিজাইন, কাস্টমাইজ অ্যাপ্লিকেশন, সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন ইত্যাদি বিভিন্ন অপশন রয়েছে পার্ট টাইম কাজ করার জন্য। এর মাধ্যমে পড়াশোনার পাশাপাশি আসবে হ্যান্ডসাম আয়।

ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট (Event Management)

Event Management

বাংলাদেশে ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট ও তরুণদের খুবই জনপ্রিয় একটি পার্ট টাইম জব বলে ধারণা করা হয়। বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ব্র্যান্ড প্রমোট করা, ক্যাম্পেইন করা ও বিভিন্ন অনুষ্ঠানের জন্য ইভেন্ট ম্যানেজমেন্টের সহায়তা নিয়ে থাকে।

তাদের সহায়তা করার জন্য ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানিগুলো স্মার্ট তরুণ-তরুণীদের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দিয়ে থাকে। ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কাজের ধরন হচ্ছে – দিন, সাপ্তাহিক বা মাসব্যাপী এই অনুষ্ঠানগুলো হয়ে থাকে। এর কারণেই ইভেন ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি গুলো কর্মীদের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ করে থাকে।

ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কিছু কোম্পানি

গণমাধ্যম (Media)

media

বর্তমান সময়ের পরিপ্রেক্ষিতে পার্টটাইম জবের জন্য আকর্ষণীয় ক্ষেত্র গণমাধ্যম। বিভিন্ন পত্র -পত্রিকায় ফিচার লিখতে কিংবা বিভিন্ন বিভাগীয় সম্পাদক বা প্রধান সম্পাদকের প্রতিবেদক এর সাথে যোগাযোগ রেখে লেখালেখি শুরু করতে পারেন। আবার আপনি চাইলে এফএম রেডিও স্টেশনে পার্ট টাইম জব এর মধ্যে রয়েছে আর জে, উপস্থাপক ও প্রতিবেদক হিসেবে কাজ করতে পারেন।

বর্তমানে গণমাধ্যম নিয়ে কাজ করেন এমন প্রতিষ্ঠানগুলো বেশ ভালো সময় কাটাচ্ছেন। আমাদের দেশে গণমাধ্যম নিয়ে কাজ করে এমন সংস্থার সংখ্যাও অনেক বেশি। স্মার্ট ক্রিয়েটিভ তরুণ-তরুণীদের গণমাধ্যমে কাজ করার অনেক সুযোগ-সুবিধা রয়েছে।

কিছু গণমাধ্যম এর লিংক –

সুপার শপ (Super shop)

Super shop

বর্তমানে যারা পড়াশোনা করছেন তাদের জন্য এটি হতে পারে অন্যতম একটি পার্ট টাইম জব। সুপার শপগুলোতে গ্রাহক সেবা দেওয়ার জন্য শিক্ষিত/স্মার্ট তরুণ-তরুণীদের নিয়োগ করা হয়। সুপারশপের অধিকাংশই পার্ট টাইম জব।

সুপার শপ গুলোতে সাধারনত দুই ধরনের কাজ হয়ে থাকে, পণ্য বহন করা, গ্রাহক বা কাস্টমারদের সেবা প্রদান করা। সুপার স্টোরে পাঁচ থেকে আট ঘণ্টা কাজ করার সময় নির্ধারিত করা থাকে। সুপার শপগুলোতে কাজ পাওয়াটা খুবই সহজ।

কিছু সুপার শপের লিংক –

ফটোগ্রাফার (Photographer)

Photographer

বর্তমানে ফটোগ্রাফি ট্রেন্ড হয়ে দাঁড়িয়েছে। ফটো তোলার শখ অথবা ভালো ফটো তোলার মাধ্যমে আয় করতে পারেন। বিভিন্ন ধরনের ছবি – প্রাকৃতিক দৃশ্য, জন্মদিন কিংবা বিয়ের অনুষ্ঠানে ছবি ওয়েবসাইটে আপলোড করার মাধ্যমে টাকা রোজগার করতে পারেন আপনি।

নিচে কিছু ওয়েবসাইটের লিংক দেওয়া হল।

কল সেন্টার (Call Center)

Call Center

বর্তমান সময়ে কল সেন্টারে শিক্ষার্থীরাই বেশি কাজ করছেন। কল সেন্টারে জবের  ক্ষেত্রে বেশি প্রাধান্য পাচ্ছেন স্মার্ট ব্যক্তিত্ব, ইংরেজিতে দক্ষ, প্রমিত উচ্চারণ, ভালো কণ্ঠ ও যোগাযোগে অভিজ্ঞ শিক্ষার্থীরা।

BDJobs

আরো বিস্তারিত জানতে কল করুন ০১৮৩০৪৭৭২২৮ নাম্বারে।

3 thoughts on “চাকরির পাশাপাশি যে কাজগুলো করতে পারেন”

  1. স্যার, নিচে লিংক শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

    Reply
  2. নিচের লিঙ্ক গুলোতে জবের জন্য লোক নিবে এটা কিভাবে বুঝবো?

    Reply
    • লিংকের ওয়েবসাইটগুলোতে যাওয়ার পর, আপনাকে ওখানে খুজে দেখতে হবে। যদি তারা কোন জব অফার করে তাহলে অবশ্যই তাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে বিষয়টি প্রকাশ করবে।

      Reply

Leave a Comment